সমস্যা এবং সমাধান

জাতীয় পরিচয়পত্র (NID ) কার্ডের তথ্য সংশোধন-

প্রতিটি দেশের নাগরিকের জন্য জাতীয় পরিচয়পত্র/এনআইডি কার্ড খুবই গুরুত্বপূর্ন তবেই অবশ্যই সেটা নির্ভূল হতে হবে। জাতীয় পরিচয় পত্রের নিজের নাম, মাতা -পিতার নাম, জন্মতারিখ, ঠিকানা, স্বামী এবং স্ত্রীর নাম পরিবর্তন করার প্রয়োজন হলে এবং আপনি যদি সেই সংশোধনের প্রক্রিয়া না জেনে থাকেন, তবে এই পোস্টটি আপনাকে সহযোগিতা করবে।

জাতীয় পরিচয় পত্র সংশোধন করার ফর্মুলা এবং জাতীয় পরিচয় পত্র ডাউনলোড করার সিস্টেম সম্পর্কে এখানে বিস্তারিত আলোচনা করা হয়েছে   অনেক সময় দেখা যায় যে, বিবাহের পরে মেয়েদের পিতার নামের পরিবর্তে স্বামীর নাম বসাতে হয় ।

সুতরাং জাতীয় পরিচয় পত্র  বর্তমানে নিত্যদিনের সঙ্গী ।মোবাইলে সিম ক্রয় থেকে শুরু করে দৈনন্দিন নানা কাজে জাতীয় পরিচয় পত্রের প্রয়োজন  হয় । কাজেই নির্ভেজাল এবং  সঠিক পরিচয় পত্র থাকা জরুরি। সেজন্যই নিচের ফর্মুলা থেকে জাতীয় পরিচয় পত্র সংশোধন করে নিন।

NID কার্ডের তথ্য সংশোধন প্রক্রিয়াঃ

আমরা সবাই জানি বর্তমানে আনলাইনে খুব সহজেই এনআইডি কার্ডের তথ্য সংশোধন করা যায়।এর জন্য প্রথমে এনআইডি পোর্টালে ঢুকে রেজিস্ট্রেশন করতে হবে এর জন্য এনআইডি নাম্বার ও জন্ম তারিখ প্রবেশ করে সাবমিট করতে হবে ।এরপর কিছু তথ্য জানতে চাইবে সেগুলো সঠিকভাবে দিলে অ্যাকাউন্ট তৈরি হয়ে যাবে এবং লগইন করা যাবে।

আগে রেজিস্ট্রেশন করে থাকলে ইউজারনেম ও পাসওয়ার্ড দিয়ে লগইন করতে পারবেন।লগইন করার পর একটি পেইজ আসবে ।এরপর প্রোফাইলে গেলে আপনার ব্যক্তিগত তথ্য দেখতে পারবেন,ডান কর্ণারে এডিট অপশনে তথ্য সংশোধন করতে পারবেন ।এর জন্য চার্জ প্রযোজ্য হবে।

এনআইডি কার্ডে যেসব তথ্য লেখা থাকে সেগুলোর জন্য প্রথমবার ২০০টাকা,দ্বিতীয়বার ৩০০টাকা এবং পরবর্তী যতবার করবেন তার জন্য ৪০০ টাকা করে ফি দিতে হবে।আর যে তথ্য গুলো লেখা থাকে না সেগুলোর জন্য প্রথমবার ১০০টাকা এবং এরপর যতবার করবেন তার জন্য ৩০০ টাকা করে ফি দিতে হবে।

ফি প্রদানের মাধ্যমঃ

১.ডাচ্-বাংলা এবং রকেট মোবাইল ব্যাংকিং।

২.ওয়ান ব্যাংক লিঃ এবং ওকে ওয়ালেট মোবাইল ব্যাংকিং।

৩.ট্রাস্ট ব্যাংক লিঃ এবং টি-ক্যাশ মোবাইল ব্যাংকিং।

৪.মিচুয়াল ট্রাস্ট ব্যাংক।

৫.বাংলাদেশ কমার্স ব্যাংক।

৬.ফাস্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক।

ফি প্রদানের ৩০মিনিট পর সংশোধনের জন্য আবেদন করতে পারবেন।

সংশোধনের জন্য আপনাকে অবশ্যই কিছু কাগজপত্র আপলোড করতে হবে।

এনআইডি সংশোধনের জন্য যে সকল কাগজপত্র প্রয়োজন

নাম সংশোধনের জন্য জন্ম নিবন্ধন,এসএসসি বা এইচএসসি পরীক্ষার সনদপত্র,পাসপোর্ট কপি,ঠিকানা পরিবর্তনের বিদ্যুত বা পানির বিলের কাগজ,বিয়ের পর স্বামীর নাম যোগ করতে হলে নিকাহনামার কাগজ, স্বামীর এনআইডির কপি,বিবাহ বিচ্ছেদের কারনে স্বামীর নাম বাদ দিলে হলে তলাকনামার কপি সংযুক্ত করতে হবে।

আরো কোন কিছু সংশোধন করতে চাইলে কি কাগজ লাগবে তা ওয়েবসাইট থেকে জানতে পারবেন।তথ্য সংশোধন অনুমোদন হলে আপনার নাম্বারে মেসেজ পাবেন।এরপর ওয়েবসাইট থেকে আপানার সংশোধিত এনআইডি প্রিন্ট করে সংরক্ষন করতে পারবেন।

বাংলাদেশের অনেকের ইন্টারনেট ব্যবহারের সামর্থ্য নেই বা যাদের ইন্টারনেটের জ্ঞান নেই তারা এনআইডি রেজিস্ট্রেশন উইং থানা/উপজেলা বা জেলা নিবার্চন অফিস থেকে সংশোধনের জন্য আবেদন করতে পারবেন।সংশোধনের জন্য উপযুক্ত কাগজপত্র আবেদনের সাথে সংযুক্ত করতে হবে।

Show More

মোঃ জাহিদুল ইসলাম

আমি মোঃ জাহিদুল ইসলাম । 2018 সাল থেকে সমাজের অর্থনৈতিক, রাজনৈতিক, সামাজিক,মানবিক দৃষ্টিভঙ্গি অবলোকন করে- জীবনকে পরিপূর্ণ আঙ্গিকে নতুন করে সাজানোর আশাবাদী। নতুনের প্রতি মানুষের আকর্ষণ চিরস্থায়ী- তাই নবরুপ ওয়েবসাইটে নিয়মিত লেখালেখি করি।
Back to top button
Close